ন্যাভিগেশন মেনু

‘কাজ শেষ না করে নতুন কাজ সম্পাদনকারী ঠিকাদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা’


যেসব ঠিকাদার কাজ শেষ না করে নতুন কাজ সম্পাদন করছে তাদের চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী তাজুল ইসলাম।

মঙ্গলবার (২৬ জানুয়ারি) দুপুর ২টার দিকে গাজীপুর মহানগরের রাজেন্দ্রপুর গজারিয়াপাড়া এলাকায় নির্মাণ দক্ষতা প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের উদ্বোধনকালে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

এসময় মন্ত্রী বলেন, ‘যেসব ঠিকাদার বছরের পর বছর কাজ ঝুলিয়ে রেখেছে, কাজের মান খারাপ করেছে তাদের চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আর যারা সঠিকভাবে কাজ সম্পাদন করছেন তাদের কাজ বাড়িয়ে দেওয়ার জন্য ইতোমধ্যে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে, যাতে করে তারা উৎসাহিত এবং প্রশংসিত হন।’

তিনি বলেন, ‘কিছু ব্যর্থতা ও দুর্বলতার কারণে অতীতে অনিয়ম করা অনেক ঠিকাদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। এটি কাটিয়ে ওঠার জন্য তিনি দায়িত্ব নেওয়ার পর প্রকৌশলীসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে নিয়ে একযোগে কাজ করছেন।’

এলজিইআরডি মন্ত্রী বলেন, ‘টেকসই নির্মাণ কাজ করার জন্য প্রশিক্ষিত শ্রমিক ও প্রকৌশলী প্রয়োজন। শ্রমিকদের প্রাতিষ্ঠানিক কোনও প্রশিক্ষণ থাকে না। সেজন্য গুণগত মাণ নিয়ন্ত্রণ এবং কাজের পরিমাণ বেশি করা তাদের পক্ষে অনেক সময় সম্ভব হয়ে উঠে না। এ বিষয়টিকে চিহ্নিত করে গাজীপুরে প্রশিক্ষণ ইউনিট কেন্দ্র করার উদ্যোগ নেওয়া হয়।’

মন্ত্রী গাজীপুর মহানগর এলাকায় একসঙ্গে অনেকগুলো রাস্তার নির্মাণ কাজ চলতে দেখে সন্তোষ প্রকাশ করে বলেন, ‘স্থানীয় জনগণের সঙ্গে কথা বলে ও পরামর্শ নিয়ে এবং তাদের সহযোগিতায় রাস্তা প্রশস্তকরণের কাজ মুগ্ধ করেছে। দায়িত্ব পালনে এধরনের জনপ্রতিনিধির আন্তরিকতা অত্যন্ত প্রশংসনীয়। এজন্য মহানগর কর্তৃপক্ষকে তিনি ধন্যবাদ জানান।’

এমআইআর/ওআ