ন্যাভিগেশন মেনু

সময়মত রেল চলতে ডাবল লাইন নির্মাণ জরুরী: রেলমন্ত্রী


আজ বৃহস্পতিবার রেলভবনে বাংলাদেশ রেলওয়ে এবং ওয়াটার এইডের মধ্যে রেলওয়ে স্টেশন সংলগ্ন স্থানে আধুনিক পাবলিক টয়লেট নির্মাণ/সংস্কারসহ ওয়াশ ব্যবস্থাপনার উন্নয়ন এবং পারস্পরিক শিখন কর্মসূচীর উদ্বোধন করেন রেলপথ মন্ত্রী মোঃ নূরুল ইসলাম সুজন এমপি।

রেলপথ মন্ত্রী এ অনুষ্ঠানে বলেন, রেলওয়ে নিরাপত্তার সাথে এবং শিডিউল রক্ষা করে সময়মত চালানোর জন্য ডাবল লাইন নির্মাণ করা জরুরী।

একটি লাইনের উপর ট্রেন চলার ফলে গতি যেমন বাড়ানো সম্ভব হচ্ছে না ফলে যাত্রীদের কাঙ্খিত সেবাও দেয়া যাচ্ছে না।

যাত্রীসেবার মান বৃদ্ধি করার জন্য সরকার বিভিন্ন কর্মসূচী গ্রহণ করেছে। বিভিন্ন রুটে ডাবল লাইন নির্মাণ করার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। স্টেশন সমূহ সংস্কার ও আধুনিকায়ন করা হচ্ছে। প্ল্যাটফরমের উচ্চতা বাড়ানো হচ্ছে।

মন্ত্রী উল্লেখ করেন, ট্রেনের ভিতর সহ টয়লেট সমূহ পরিষ্কারের উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। যাত্রীসেবার অংশ হিসেবে আজ ওয়াটার এইড বাংলাদেশের সাথে পাবালিক টয়লেট নির্মাণ ও সংস্কার করার উদ্দেশ্যে এই যৌথ চুক্তি করা হলো।

আশা করা যাচ্ছে এইগুলো থেকে শিক্ষা নিয়ে এক বছরের মধ্যে বাংলাদেশের ৫০টি স্টেশনের পাবলিক টয়লেটকে আধুনিকায়ন ও উন্নত করা সম্ভব হবে।

আজকের এই অনুষ্ঠানের মাধ্যমে কমলাপুরে ২টি ও বিমান বন্দর রেল স্টেশনে মোট ৩ টি পাবলিক টয়লেট নির্মাণ ও সংস্কার করার কাজের উদ্বোধন করা হলো।

এই ৩ টি পাবলিক টয়লেটের ব্যবস্থাপনার সফল মডেল যাত্রী সেবার মান উন্নয়ন এবং পার®পরিক শিখন কর্মসূচি বাংলাদেশ রেলওয়ে এবং ওয়াটারএইড বাংলাদেশ  ভবিষ্যতে একযোগে কাজ করবে বলে মন্ত্রী আশা প্রকাশ করেন।

এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন রেলপথ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ সেলিম রেজা।

অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক ধীরেন্দ্র নাথ মজুমদার, ওয়াটার এইডের কান্ট্রি ডিরেক্টর হাসিন জাহান, সিনিয়র ডিসেন্ট্রালাইজেশন ও ওয়াশ স্পেশালিস্ট শান্তনু লাহিড়ী।

এস এস