NAVIGATION MENU

গায়ক এআর রহমানের মেয়েকে কটাক্ষ তসলিমা নাসরিনের


‘আমি বলিউডের অস্কারজয়ী সংগীত পরিচালক এআর রহমানের সংগীতকে ভালোবাসি। তবে যখনই আমি তার প্রিয় মেয়েকে দেখি, তখন আমার দম বন্ধ হয়ে যায়। এটি সত্যি হতাশাজনক, একটি সাংস্কৃতিক পরিবার শিক্ষিত নারীর চিন্তাধারাও এত সহজে কীভাবে পরিবর্তন করতে পারে!’

মঙ্গলবার এআর রহমানের মেয়ে খাদিজার নেকাব পরা একটি ছবি নিজের টুইটারে পোস্ট করেন বাংলাদেশি লেখিকা তসলিমা নাসরিন। সেখানেই তার সমালোচনা করে এসব কথা বলেন তিনি।

বাংলাদেশের বিতর্কিত এই লেখিকা টুইট করার পর থেকে শুরু হয়ে যায় পাল্টা সমালোচনা। নেটিজেনদের একাংশের আক্রমণের মুখে পড়েন তসলিমা নাসরিন।

ইজাজ সাইফি নামে একজন লিখেছেন, নিজের চিন্তাধারা নিজের কাছেই রাখুন, অন্যের ওপর চাপিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করবেন না।

তসলিমার মতামত কেউ জানতে চাননি জানিয়ে উমাইয়ের নামে একজন লিখেছেন, রহমানের মেয়ের পোশাকের জন্য কেউ আপনার মতামত জানতে চাননি। নিজের কাজ নিজে করুন।

তবে তসলিমা নাসরিনের সমর্থনেও কেউ মুখ খুলতে শুরু করেন। মেয়েকে বোরকা পরানোর জন্য এআর রহমান সমানভাবে দায়ী বলে লেখিকার পাশে দাঁড়ান অনেকেই।

আবার কেউ কেউ এআর রহমানের ধর্মান্তরীত হওয়ার প্রসঙ্গ তুলে বলিউডের এই সংগীত তারকাকে কটাক্ষ করতে শুরু করেন।

এর আগে আলোচিত ছবি স্লামডগ মিলিয়নিয়ারের ১০ বছর পূর্তি উপলক্ষে আয়োজন করা হয়েছিল এক অনুষ্ঠানের। সেই অনুষ্ঠানের মঞ্চে নেকাব পরে হাজির হয়েছিলেন ওই ছবির অস্কারজয়ী সংগীত পরিচালক এআর রহমানের মেয়ে খাদিজা। আর এতেই শুরু হয়েছে সমালোচনা।

অনেক সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ব্যবহারকারী এতে ক্ষিপ্ত হয়েছে এআর রহমানের ওপর। অনেকেই বাজে মন্তব্য করেছেন তার ও তার পরিবার সম্পর্কে।

কিন্তু এসব কিছুকে পাত্তা দিতে নারাজ এআর রহমানের পরিবার। তিনি মেয়ের পক্ষ নিয়ে বলেছেন, ইচ্ছেমতো পোশাক পরিধান করার স্বাধীনতা রয়েছে আমার পরিবারের সবার। আমরা এতে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করি।


সিবি / এস এস